1. admin@muhurto.tv : muhurtotv :
  2. smbabu.mcj@outlook.com : S M Babu : S M Babu
শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:০৬ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ মুহূর্তঃ

পত্নীতলায় ফুলগাছের তৈরি বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি নষ্ট করল দুর্বৃত্তরা

রেজা রায়হান, সংবাদ মুহূর্ত, নওগাঁ।
  • তথ্য হালনাগাদের সময়ঃ বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ২১১ প্রদর্শিত সময়ঃ

নওগাঁর পত্নীতলায় মুজিবর্ষ উপলক্ষে ফুলগাছ দিয়ে তৈরি করা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি বিনষ্ট করার অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে নওগাঁ পুলিশ সুপার বরাবর আবেদন করেছেন প্রতিকৃতি তৈরিকারী মোঃ ফরহাদ আলম নামের এক ব্যক্তি। অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মোঃ ফরহাদ আলম এক সময় কর্মসূত্রে ঢাকায় বসবাস করতেন। সেই সময় ঢাকায় বঙ্গবন্ধুকে ঘিরে বিভিন্ন অনুষ্ঠান তাকে ভীষণভাবে নাড়া দিত।

এরপর এলাকায় ফিরে এসে বঙ্গবন্ধুর প্রতি তার সেই টান থেকেই সিদ্ধান্ত নেন তাঁর একটি প্রতিকৃতি বানাবেন। সে সময় ফুলগাছ দিয়ে প্রতিকৃতি বানানোর বিষয়টি তার মাথায় আসে। সেই ভাবনা থেকেই  নিজ জেলার পত্নীতলা উপজেলাধীন বালুঘা নামক এলাকায় তার সে স্বপ্নের বাস্তবায়ন করতে আপন খালাতো ভাই  স্থানীয় হামিদুর রহমান রনির লিজ নেয়া এক একর জমিতে ৪০ হাজার ফুল গাছের সমন্বয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি তৈরির কাজ শুরু করেন। সম্পূর্ণ নিজস্ব অর্থায়নে প্রায় ছয় মাস ধরে ফুলগাছ দিয়ে তৈরি করা বঙ্গবন্ধুর তিনটি প্রতিকৃতি, ৭ই মার্চের ভাষণ এবং বাঁশ, গাছের গুলসহ দেশীয় উপকরণ দিয়ে গড়ে তোলেন  তিনশ’ ফুট দৈর্ঘ‍্যের একটি নৌকা প্রতীকের অবয়ব। এটি আগামী ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসে প্রদর্শনীর জন্য উন্মুক্ত করার কথা ছিল। কিন্তু দুষ্কৃতিকারীদের কারণে তার লালিত সেই স্বপ্ন অধরাই থেকে গেল।

ফরহাদ আলম বলেন, তাদের চুক্তির মেয়াদ শেষ না হতেই কোনও আলোচনা ছাড়াই অভিযুক্ত পত্নীতলা নিবাসী মোঃ নজরুল ইসলামের ছেলে নাজমুল আরেফিন পুনরায় ওই জমি  অন্য আর একজনের কাছে হস্তান্তরের পাঁয়তারা করেন। এক পর্যায়ে গত শুক্রবার ও শনিবার নাজমুল আরেফিনসহ  পত্নীতলা নিবাসী জালালের ছেলে আরমান, আয়েন আলীর ছেলে আমিনুল, মনিরের ছেলে মামুন, আলাউদ্দিনের ছেলে রফিকুল বুলডোজার দিয়ে পুরো প্রকল্পটি গুঁড়িয়ে দেন।

এ বিষয়ে অভিযোগকারী ফরহাদ আলম জানান, বঙ্গবন্ধুর প্রতি ভালবাসা থেকেই প্রকল্পটি হাতে নিয়েছিলাম, ইচ্ছে ছিল মুজিবর্ষে বিজয় দিবস উপলক্ষে সেটি সকলের সামনে উন্মোচিত করব। কিন্তু আমার দীর্ঘ দিনের সেই স্বপ্ন পূরণ হতে দিলনা তারা।  মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট এমন ঘৃণ্য ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করছি।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত নাজমুল আরেফিন এর সাথে মুঠোফোনে  একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাকে ফোনে পাওয়া যায়নি।   

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার প্রকৌশলী মোঃ আব্দুল মান্নান (বিপিএম) বলেন, এ ব্যাপারে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে সত্যতা যাচাই করে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

খবরটি আপনার স্যোশাল টাইমলাইনে শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরও অন্যান্য খবর
কপিরাইট © ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত মুহূর্ত কমিউনিকেশনস লিমিটেড।
error: কপি/রাইট ক্লিক এর অনুমতি নাই !!!